শেরপুরের শ্রীবরদীতে ৫ জুয়ারুকে গ্রেপ্তাতার করেছে পুলিশ

0
14

নিজস্ব প্রতিবেদক মোঃ সাইদুর রহমান আপন।

শেরপুর জেলার শ্রীবরদী থানার পুলিশ গোপন সংবাদের ভিত্তিতে জানতে পারেন যে শ্রীবরদী থানাধীন চান্দাপাড়া এলাকায় ২৮ই ডিসেম্বর রাতে মোঃ আবু এর বসত বাড়ীর উত্তর পাশে টিলার উপর আসামিগণ মোমবাতি আলো জ্বালিয়ে টাকার বিনিময়ে তাস দিয়ে জুয়া খেলেছেন, শ্রীবরদী থানার সুযোগ্য অফিসার ইনচার্জ মোঃ কায়ুইম খান সিদ্দিকী কাছে মোবাইল ফোনের মাধ্যমে সংবাদ দেয়।ঘটনার সংক্ষিপ্ত বিবরণ এই যে, আমি এস আই (নিজ) মোঃ আক্তারুজ্জামান সংগীয় অফিসার ও ফোর্স সহ শ্রীবরদী থানার জিডি নং১১৯৪, তাং-২৮/১২/২০২৩ খ্রিঃ মলে শ্রীবরদী থানা এলাকায় w/A তামিল, মাদক দ্রব্য উদ্ধার ও বিশেষ অভিযান পরিচালনা কালে শ্রীবরদী থানাধীন কর্ণঝোড়া বাজারে অবস্থানকালে রাত্রী অনুমান ০১.১৫ ঘটিকার সময় গোপন সংবাদের ভিত্তিতে জানতে পারি যে, শ্রীবরদী থানাধীন চান্দাপাড়া সাকিনস্থ জনৈক মোঃ ফয়েজুল ইসলাম, পিতা- মোঃ আবু এর বসত বাড়ীর উত্তর পাশে টিলার কতিপয় আসামীগণ মোমবাতির আলোর জ্বালিয়ে টাকার বিনিময়ে তাস দিয়া জুয়া খেলিতেছে। উক্ত সংবাদ প্রান্তীর পর থানার অফিসার ইনচার্জ সাহেব কে মোবাইলে অবহিত করিয়া তাহার নির্দেশক্রমে বিষয়টি সত্যতা যাচাই-বাচাই ও আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করার জন্য আমি সংগীয় অফিসার ও ফোর্স সহ ইং ২৮/১২/২০২৩ তারিখ রাত্রী অনুমান ০১.২৫ ঘটিকার সময় উক্ত স্থানে পৌছিয়া ৮/৯ জন লোক দেখিতে পাই। তাহারা পুলিশের উপস্থিতি টের পাইয়া দৌড়াইয়া পলায়নকালে উক্ত আসামীদেরকে সংগীয় অফিসার ও ফোর্সের সহায়তায় ৩নং কলামে বর্ণিত আসামীদের কে হাতেনাতে ধৃত করি। আসামি (১) মোঃ মমিন মিয়া(৩০) পিতা মোঃ আব্দুস সালাম,(২) ফায়জুর ইসলাম (২৭) পিতা মোঃ আবু মিয়া,(৩) মোঃ নজরুল ইসলাম (৪৫) পিতা আবুজল হক,(৪) মোঃ আজমত আলী (৫৫) পিতা মৃত আব্দুর রহমান,(৫) মোঃ উকিল মিয়া(২৭) পিতা মোঃ সামিউল হক,উপস্থিত স্বাক্ষীদের মোকাবেলায় রাত্রী অনুমান ১.৩০ ঘটিকা সময় জুয়ার আসর হইতে ০১ (এক) বান্ডিল অর্থাৎ ৫২টি তাস, নগদ ৫১০/- টাকা এবং ০৪ (চার)টি অর্ধ পুরা মোমবাতির অংশ জব্দ করি এবং জব্দ তালিকায় উপস্থিত স্বাক্ষীদের স্বাক্ষর গ্রহণ করি। বিষয়টি অফিসার ইনচার্জ শ্রীবরদী থানা সাহেব’কে অবগত করি। প্রাথমিক তদন্তে আসামীদের এহেন কার্যকলাপ ১৮৬৭ সনের বঙ্গীয় জুয়া আইনের ৪ ধারায় অপরাধ প্রাথমিক তদন্তে সত্য প্রমাণিত হওয়ায় প্রকাশ্য আদালতে বিচারের নিমিত্তে উক্ত আসামীদের বিরুদ্ধে শ্রীবরদী থানার নন-এফ.আই.আর প্রসিকিউশন নং-২৪৮/২০২৩, তাং-২৮/১২/২০২৩ খ্রিঃ, ধারা- ১৮৬৭ সনের বঙ্গীয় জুয়া আইনের ৪ ধারা বিজ্ঞ আদালতে দাখিল করা হলো।এই বিষয়ে শ্রীবরদী থানার সুযোগ্য অফিসার ইনচার্জ মোঃ কায়ুইম খান সিদ্দিকী এর কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন মাদক, জুয়া ও অপরাধ মূলক বিষয়ে আমাদের অভিযান বিগত দিন যাবত করে আসছি এবং করতেছি মাদক এবং জুয়ার ক্ষেত্রে জিরো টলারেন্স আমরা শেরপুর জেলা শ্রীবরদী থানার মাধ্যমে শ্রীবরদী কে মাদক জুয়া অপরাধ মুক্ত করব ইনশাআল্লাহ।

IFRAME SYNC

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here