পার্বতীপুরে বিদ্যালয়ে কর্মচারী নিয়োগে অনিয়মের অভিযোগ

0
24

মেনহাজুল ইসলাম তারেক, দিনাজপুর জেলা প্রতিনিধি-

দিনাজপুরের পার্বতীপুরে পাটিকাঘাট দ্বিমুখী উচ্চ বিদ্যালয়ে তৃতীয়-চতুর্থ শ্রেনির কর্মচারী নিয়োগের নামে গণহারে চাকুরী প্রার্থীদের নিকট থেকে আগাম উৎকোচ নেয়ার অভিযোগ উঠেছে।এ অভিযোগ করেন অফিস সহকারী পদে আবেদনকারী সামিউল ইসলাম সরকার, পরিচ্ছন্নতা কর্মী পদে আবেদনকারী আরিফুল ইসলাম।আজ মঙ্গলবার সন্ধা ৭টায় পাটিকাঘাট জ্যোস্নার মোড়ে সাংবাদিকদের নিকট ভিডিও সাক্ষাৎকারে এসব অভিযোগ করেন তারা। সামিউল ইসলাম জানায়, নিয়োগ বিধি অনুযায়ী আবেদনকারীদেরকে নিয়োগ পরীক্ষার অন্তত ৭ দিন পূর্বে প্রবেশ পত্র দেয়ার নিয়ম থাকলেও বিদ্যালয়টি’র প্রধান শিক্ষক ২৩ অক্টোবরে স্বাক্ষরিত প্রবেশ পত্রটি প্রেরণ করেন ২৪ অক্টোবর। তাতে উল্লেখ করা হয় নিয়োগ পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে ২৫ অক্টোবর। নিজস্ব বিদ্যালয়ের পরিবর্তে পরীক্ষার স্থান লেখা হয় ২৫/৩০ কিলোমিটার দূরে বিরামপুর উপজেলার বিরামপুর সরকারী বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ে। সামিউল জানায়, বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক আবুল হোসেন চাকুরী দেয়ার কথা বলে তার কাছ থেকে ২ লাখ টাকা উৎকোচ গ্রহণ করে। আরিফুল ইসলাম ও তার মা আছিয়া বেওয়া জানায়, তাদের কাছ থেকে বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ৬ লাখ টাকার চুক্তিতে ১ লাখ টাকা উৎকোচ নেন। কিন্তু তিনি জানতে পারেন, একই পদে চাকুরি দেয়ার কথা বলে আরও অনেকের কাছে টাকা নিয়েছেন প্রধান শিক্ষক। তার আশঙ্কা, প্রধান শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষায় সু-কৌশলে তার মনোপুতঃ প্রার্থীকে পাশ করিয়ে নিয়োগ দেয়ার সমূহ ব্যবস্থা করে রেখেছেন।আয়া পদের আবেদনকারী শরিফা বেগমের স্বামী রুহুল আমিন মুঠোফোনে জানায়, বিদ্যালয়টি’র সভাপতি রেজাউল করিম বুলু ১২ লাখ টাকা চুক্তিতে তার কাছ থেকে ৬ লাখ টাকা উৎকোচ নেন। তাকে বলা হয় যে, কোন প্রমান রাখলে তোমার স্ত্রীর চাকুরী হবেনা।অভিযোগকারীগণ ২৫ অক্টোবরের নিয়োগ পরীক্ষা স্থগিত রেখে নতুন করে নিয়োগ পরীক্ষার দিন ধার্য্য করার জন্য প্রশাসনের নিকট জোর দাবী জানিয়েছেন।এ বিষয়ে পাটিকাঘাট দ্বিমুখী উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আনোয়ারুল ইসলামের সাথে তার মুঠোফোনে কথা হলে তিনি উৎকোচ নেয়ার কথা অস্বীকার করে অকপটে স্বীকার করেন যে, নিয়োগ পরীক্ষার প্রবেশ পত্র দেয়ার নিয়ম কয়েকদিন পূর্বে একথা ঠিক। তবে আমি আমার নিজের ইচ্ছার বিরুদ্ধে সভাপতির নির্দেশেই তাড়াহুড়া করে লোক মারফত ২৪ অক্টোবর প্রবেশ পত্র পৌঁছাই।বিদ্যালয়টির ম্যানেজিং কমিটি’র সভাপতি রেজাউল হক বুলু তার বিরুদ্ধে উৎকোচ নেয়ার অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, উপর মহলের নির্দেশেই একদিন পূর্বে প্রবেশ পত্র পাঠানোর ব্যবস্থা করা হয়েছে।উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার আশরাফুল হক প্রধান মুঠোফোনে বলেন, নিয়োগ পরীক্ষা শুরুর আগেই লিখিত অভিযোগ পেলে পরীক্ষা স্থগিত করা হবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here